মীরসরাই (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি:
মীরসরাইয়ে খোলা বাজারে বিক্রীর চাল চুরি করে ধরা পড়েছে বাবু নামে এক দোকানদার। সোমবার দুপুরে উপজেলার ৮নং দূর্গাপুর ইউনিয়নের চৈতন্যের হাটে অভিযান চালিয়ে এসব চাল বিক্রির সময় হাতেনাতে একজনকে আটক করে উপজেলা প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী যৌথ বাহিনী।

আটক মুদি দোকানদার বাবুকে (৪০) জোরারগঞ্জ থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়েরের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন মীরসরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রুহুল আমিন।

রুহুল আমিন সাংবাদিকদের বলেন, এক ক্রেতা চৈতন্যের হাট এলাকার বিনোতোষ চন্দ্র নাথের মুদি দোকানে চাল কিনতে যান। ২ হাজার ৫০ টাকায় তিনি এক বস্তা চাল কিনেন। ওই ক্রেতা ঘরে এসে দেখেন- চালের বস্তায় সরকারি সিল দেয়া। চালগুলো ওএমএসর মাধ্যমে বিক্রির জন্য। তিনি চাল কেনার রশিদ সহ আমাদের কাছে অভিযোগ করলে আমরা অভিযান চালিয়ে বিনোতোষ চন্দ্র নাথের ভাতিজা বাবুকে দোকান থেকে আটক করি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, অভিযানে ওই ক্রেতার কাছে ওএমএসর চাল বিক্রির কথা স্বীকার করায় বাবুকে আটক করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি জানিয়েছেন ফেনী থেকে ওএমএসর এসব চাল এনে দোকানে বিক্রি করছেন তিনি।

ইউএনও বলেন, সরকার ওএমএসর মাধ্যমে কেজি প্রতি ১০ টাকায় চাল বিক্রি করছে নিম্ন আয়ের মানুষের জন্য। এসব চাল বিক্রি হওয়ার কথা খাদ্য অধিদফতরের অনুমোদিত ডিলারের মাধ্যমে। কিন্তু কীভাবে এসব চাল মুদি দোকানে এলো-কারা কারা এ প্রক্রিয়ার সঙ্গে জড়িত তা খুঁজে বের করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।